ঢাকা    শুক্রবার, ২৫ সেপ্টেম্বর ২০২০

coronavirus
আক্রান্ত সুস্থ মৃত
বিশ্বব্যাপী ৩২১৮৮৪২৩ ২৩৭৪৮৬৩৩ ৯৮৩৪৫৭
বাংলাদেশ ৩৫২১৭৮ ২৬০৩৯০ ৫০০৭

আর কখনোই খুলবে না স্টার সিনেপ্লেক্স!

প্রকাশিত: ১৭:১১, ১ সেপ্টেম্বর ২০২০  

ছবি: সংগৃহীত

ছবি: সংগৃহীত

প্রেক্ষাগৃহ কবে খুলবো তা এখনো অনিশ্চিত। বাকি সিনেমা হল যখনই খুলুক, বসুন্ধরা সিটি শপিং মলের স্টার সিনেপ্লেক্সের তালা বন্ধই থাকবে। ঢাকাবাসীর বিনোদনের জনপ্রিয় এই প্রেক্ষাগৃহ আর কখনোই খুলবে না।

মঙ্গলবার স্টার সিনেপ্লেক্সের বিপণন ও জনসংযোগ কর্মকর্তা মেসবাহ উদ্দীন আহমেদ এ তথ্য নিশ্চিত করেন।

তিনি বলেন, বসুন্ধরা সিটি শপিংমলের কর্তৃপক্ষ আমাদের নোটিশ দিয়েছে সিনেপ্লেক্স বন্ধ করার জন্য। বাড়িওয়ালার নোটিশ পেলে তো ছেড়ে দিতেই হবে। শপিংমল নিয়ে তাদের নতুন পরিকল্পনা রয়েছে। তবে স্টার সিনেপ্লেক্সের ধানমন্ডি ও মহাখালীর শাখা চালু থাকবে।

করোনাভাইরাসের জেরে গত মার্চ থেকে বন্ধ ছিল সব ধরনের শুটিং এবং সিনেমা হল। লকডাউন শিথিল হওয়ার পর নিয়ম মেনে শুটিংও শুরু হয়েছে। কিন্তু এখনো তালা ঝুলছে সিনেমা হলগুলোর গেটে। এই পরিস্থিতিতে স্টার সিনেপ্লেক্স বন্ধ হয়ে যাওয়ার গুঞ্জনও উঠেছিল।

সিনেমা হল খোলার সিদ্ধান্ত দেয়া হলে মহাখালীতে অবস্থিত এসকেএস (সেনা কল্যাণ সংস্থা) টাওয়ার, ধানমন্ডির সীমান্ত সম্ভার (রাইফেল স্কয়ার) শপিং মলের স্টার সিনেপ্লেক্স চালু হবে। মিরপুরের সনি সিনেমা হল ভেঙ্গে যে শপিং মল করা হচ্ছে সেখানেও একটি শাখা চালু করতে যাচ্ছে স্টার সিনেপ্লেক্স।

স্টার সিনেপ্লেক্স-এর মাধ্যমে দেশে মাল্টিপ্লেক্স যাত্রা শুরু করে ২০০৪ সালে। স্পাইডারম্যান দিয়ে প্রথম ছবি দেখানো শুরু করে স্টার সিনেপ্লক্সে। পাঁচটি হলের জায়গা থাকলেও প্রথম শুরু করে তিনটি হল নিয়ে। কিন্তু দুভার্গ্যজনক ভাবে প্রথম দুই বছর শুধুই ক্ষতি হতে থাকে। মানুষের আনাগোনা হয় না সিনেপ্লেক্সে। এমন অবস্থা হয় ব্যাংকের ঋণ শোধ করাই কঠিন। কিন্তু ঘুরে দাঁড়াতে হবে। ওই সময় প্রচুর মার্কেটিং শুরু করেন। হলিউডের ‘গ্লাডিয়েটর’ এবং বাংলাদেশের ‘মোল্লা বাড়ির বউ’ সিনেমাটি দিয়ে ব্যবসা ঘুরে যায় সিনেপ্লেক্সের।
 

Add